দ্বিতীয় দফায় ভাসানচরে রোহিঙ্গা স্হানান্তর ৫১ পরিবার।

ARIFkhan 0

উখিয়া প্রতিনিধিঃ

আজ সোমবার ২৮ ডিসেম্বর ২০২০ সকাল ১১ টা নাগাদ ১৩ টি বাসে দ্বিতীয় দফায় স্বেচ্ছায় আরও এক হাজার রোহিঙ্গা পরিবার ভাসানচরের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছে। উখিয়া ডিগ্রি কলেজের মাঠ থেকে ১৩টি বাসে চড়ে চট্টগ্রামের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছেন ভাসানচরগামী রোহিজ্ঞারা। প্রতিটি বাসে ৩০ জন করে রয়েছেন। এছাড়াও এই গাড়ি বহরে পুলিশের একটি গাড়ি এবং একটি অ্যাম্বুলেন্স রয়েছে।

এর আগে রবিবার (২৭ ডিসেম্বর) বিকেলে উখিয়া-টেকনাফের ৩৪টি ক্যাম্প থেকে রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে নিয়ে যেতে উখিয়া কলেজ মাঠে অস্থায়ী ট্রানজিট পয়েন্টে রাখে ছিল।

মূল ক্যাম্প ছাড়াও ৩৪টি ক্যাম্প থেকেই ভাসানচরে যেতে ইচ্ছুক রোহিঙ্গারা গতকাল বিকেল ৪টা থেকেই ট্রানজিট পয়েন্টে আসতে শুরু করে। আজ বাস ছেড়ে যাওয়ার আগে অনেকেই এসে যোগ দিয়েছে।
গত ৪ ডিসেম্বর প্রথম দফায় ১ হাজার ৬৪২ রোহিঙ্গা ভাসানচরে গেছে। এর আগে মালয়েশিয়া যেতে গিয়ে সমুদ্র উপকূলে আটক আরও তিন শতাধিক রোহিঙ্গাকে সেখানে নিয়ে রাখা হয়।

টেকনাফ নয়াপাড়া ও উখিয়ার কুতুপালংয়ের নিবন্ধিত ও অনিবন্ধিত ক্যাম্পের মাঝিরা বলেন, গতবারের চেয়ে এবারের চিত্র উল্টো। ওই সময় রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে নিতে অনেক বোঝাতে হয়েছে। কিন্তু ২০ দিনের মধ্যে চিত্র পাল্টেছে। এবার রোহিঙ্গারা ভাসানচরে যেতে নিজেরাই তালিকায় নাম লিখিয়েছে। এবং বাকিদের মধ্য অনেকে ভাসানচরে যাওয়ার কথা বলতেছে।

এছাড়া গত ৪ ডিসেম্বর যাদের আত্মীয়স্বজন ভাসানচরে গেছে, তাদের কাছে সুযোগ-সুবিধার খবর শুনেই অনেকেই যেতে উৎসাহিত। গতবার যখন জোর করে গোপনে বিভিন্ন অপপ্রচার থেকে লুকিয়ে তাদের ট্রানজিট ক্যাম্পে আনা হয়েছিল, এবারের চিত্র ভিন্ন। বিকেলে অনেকেই প্রথম ট্রিপের যাত্রী হতে ক্যাম্পে এসে পড়েছে।

এ সূত্রে জানা যায় উখিয়া ও টেকনাফের তালিকাভুক্ত ক্যাম্প ছাড়া বাকি সব ক্যাম্প থেকেই যাচ্ছে রোহিঙ্গারা ভাসানচরে । উখিয়ার কুতুপালং-১, ২, ৩, ৪, ৫, ৮ ডব্লিউ ক্যাম্প থেকে যাচ্ছে অনেক রোহিঙ্গা পরিবার। উখিয়ার কুতুপালং-৪ নম্বর ক্যাম্প থেকে ২৭ পরিবার যাবে। কুতুপালং-২ ডব্লিউ থেকে যাবে ২৪ পরিবার।
উখিয়াস্থ লম্বাশিয়া রোহিঙ্গা ক্যাম্পের (ইস্ট) মাঝি বলেন, ‘আমার ব্লক থেকে কয়েকটি পরিবার ভাসানচরে যাচ্ছে। তাদের কাউকে জোর করা হয়নি।তারা সেচ্ছায় যাচ্ছে।

তিনি আরো বলেন, আগামী যাত্রায় ভাসানচরে যাওয়ার জন্য তারা সেচ্ছায় মানসিকভাবে প্রস্তুতি গ্রহণ করতেছে।

Tags: